রবিবার, ২১ জুলাই ২০২৪, ০৭:২৭ পূর্বাহ্ন

মান্ডার পাতি নেতা আলাউদ্দীনের ব্যাটারী রিক্সার অবৈধ টোকেন বাণিজ্য-২

মোঃ তারিক হোসেন অনিক
  • প্রকাশিত : শনিবার, ২৬ নভেম্বর, ২০২২

মোঃ আলাউদ্দিন, মান্ডা এলাকার বাসিন্দা। আলাউদ্দিন ঢাকা মহানগর মুগদা মান্ডা এলাকার ৭২ নং ওয়ার্ডের শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক পরিচয় দিয়ে মুগদা-মান্ডা এবং যাত্রাবাড়ী এলাকায় দীর্ঘদিন যাবত ব্যাটারি চালিত রিক্সার টোকেন বাণিজ্য চালিয়ে আসছে। এ যেন ক্ষমতার দাপট। তিনি নিজেকে খুব ক্ষমতাধর ব্যক্তি হিসেবে পরিচয় দেন। তিনি দাম্মিকতার সহিত বলেন, সবাইকে ম্যানেজ করেই আমি আমার এই টোকেন বাণিজ্য চালিয়ে যাচ্ছি।

মরছে মানুষ চলছে অটোরিক্সা ক্ষমতার বাহুবলীতা টোকেন বাণিজ্য, চাঁদাবাজি জুয়ারীর দাপট। ঢাকা মহানগরের ব্যাটারি চালিত রিক্সা। নেপথ্য প্রভাবশালী সিন্টিকেট আবারো হঠাৎ করে নগরীরর ব্যাটারী চালিত রিক্সা বাণিজ্য নেতাদের দাপট। ঢাকা শহরের অলিগলি দাপিয়ে বেড়াচ্ছে এই রিক্সা। বর্তমান কথিত কতিপয় রিক্সা মালিক চালক সমিতির মাধ্যমে এবং স্থানীয় রাজনৈতিক প্রভাবশালীদের ম্যানেজ করে চলছে এর বাহন। অনবিজ্ঞ এই রি´া চালকদের বেশিরভাগই দ্রুতগতি সম্পন্ন ব্যাটারিচালিত রিক্সা চালানোর কোনো পূর্ব অভিজ্ঞতা বা প্রশিক্ষণ নেই। ছোট ছোট কিশোর কিশেীর দ্বারা চলছে তো চলছে অটো রিক্সা। মহামান্য আদালতের নিষেধাজ্ঞা দ্রুত গতি সম্পন্ন ব্যাটারিচালিত রিক্সা নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে দুর্ঘটনা ঘটাচ্ছে প্রতিনিয়ত। বাড়ছে যানজটও। হাইকোর্টের নির্দেশ অমান্যর পাশাপাশি অবৈধভাবে বিদ্যুঃ খরচ করে ব্যাটারিচালিত এসব অবৈধ রিক্সা নগরীর অলিগলি দাপিয়ে বেড়াচ্ছে। সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ কোন পদক্ষেপ নিচ্ছে না। এলাকার বাসিন্দারা অভিযোগ করে বলেন, এসব অনবিজ্ঞ রিক্সা চালকরা স্বজোওে হর্ণ বাজিয়ে এলাকার শব্দ দূষণের পাশাপাশি বেপরোয়া গতিতে চালাতে গিয়ে প্রতিনিয়ত দুর্ঘটনাও ঘটাচ্ছে। মুগদা, মান্ডা, যাত্রাবাড়ীতে প্রায় ৫ হাজার ব্যাটারি চালিত রিক্সা দাপিয়ে বেড়াচ্ছে। ব্যটারি চালিত রিক্সা চার্জ দেওয়ার কারণে প্রতিদিন বিদ্যুৎ ঘাটতি হচ্ছে। এছাড়া টোকেন বাণিজ্যর কারণে প্রতি রিক্সা থেকে আলাউদ্দিন ১৫০০ টাকা করে চাঁদা আদায় করে কোটি কোটি টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে।
লোডশেডিংয়ের যন্ত্রণায় যখন অতিষ্ট নগরবাসী, তখন বিদ্যুৎ ব্যবহার করে অনুমোদনহীন এসব ব্যাটারি চালিত রিক্সা প্রচুর বিদ্যুৎ অপচয় করছে।

আলাউদ্দিন এর ব্যাটারি চালিত অটো রি´ার এই টোকেন বাণিজ্যর ফলে বিদ্যুৎ এর যেমন অবৈধ ব্যবহার হচ্ছে তেমনি শিল্পকারখানা সহ বহু গার্মেন্টস শিল্প আজ হুমকির মুখে। তাই স্থানীয় বাসিন্দাদের দাবী আলাউদ্দিনের এই টোকেন বাণিজ্য বন্ধ করা না হলে ক্ষতিগ্রস্থ হবে সাধারণ মানুষ, ক্ষতিগ্রস্থ হবে দেশের শিল্প কারখানা।

(চলবে-)

এই বিভাগের আরও খবর